মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানে বিএনপিকে আমন্ত্রণ জানানো হবে: ওবায়দুল কাদের     আমরা টানেল নির্মাণ করছি যা ভারতও পারেনি: পরিকল্পনামন্ত্রী     ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত: ভণ্ডপীর মতিউরসহ ৯ জনের কারাদণ্ড     আমারও বৈধ জন্মসনদ নেই: অমর্ত্য সেন     বগুড়ায় রেটিনা কোচিং থেকে শিবিরের ৯ নেতাকর্মী গ্রেপ্তার     শহীদ মিনারে র‌্যাবের তিন ধাপের নিরাপত্তা     একুশের ইতিহাস সব প্রজন্মকে জানতে হবে : প্রধানমন্ত্রী     গুণীজনদের হাতে একুশে পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী    

হত্যা মামলায় ১ জনের মৃত্যুদণ্ড

  সেপ্টেম্বর ১০, ২০১৯     ৬৭     ০০:২০     আইন-আদালত
--

উত্তরণবার্তা প্রতিবেদক : রাজবাড়ীর কালুখালীতে জব্বার মোল্লা হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় আরজু মোল্লা (৩৬) নামে একজনের মৃত্যুদণ্ড ও ৬ জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

সোমবার বিকালে জেলা ও দায়রা জজ নিলুফার সুলতানা এ রায় প্রদান করেন। রায় ঘোষণাকালে আসামিরা আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ২০১৫ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর রাত সাড়ে ১০টার দিকে রাজবাড়ীর কালুখালী উপজেলার মৃগী ইউনিয়নের দেওয়ালী গ্রামে জব্বার মোল্লাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। সাজাপ্রাপ্ত অন্যরা হলেন- রোজিনা ও তার স্বামী এরশাদ বিশ্বাস, খোরশেদ মোল্লা ও তার ছেলে রাশেদ মোল্লা, বেল্লাল মোল্লা ও শহর আলী। রায় ঘোষণাকালে তারা আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

আদালতের তথ্য অনুযায়ী জানা যায়,২০১৫ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর রোজিনার ছেলে হৃদয় (১২) একই গ্রামের জলিল মোল্লার বাড়ির পাশে মেহেদী গাছের ডাল কাটে। এ সময় ডাল কাটতে নিষেধ করায় হৃদয় চলে যায়। পরে ডাল কাটতে না দেয়ায় হৃদয়ের মা রোজিনা ও জলিল মোল্লার স্ত্রী হামিদা বেগম এবং মেয়ে আরিফা বেগমের ঝগড়া হয়। এ নিয়ে ওই দিন দুপুরে উভয় পরিবারের মধ্যে মারামারিও হয়।

পরদিন রাতে রোজিনা ও তার পরিবারের লোকজন লাঠি ও ধারালো অস্ত্র নিয়ে জলিল মোল্লার বাড়িতে প্রবেশ করলে সে দৌড়ে পাশের এছেম আলীর মেহগনি বাগানের মধ্যে গিয়ে আশ্রয় নেয়। এ সময় কোনো কিছু বোঝার আগেই তারা তাকে এলোপাতাড়ি মারপিট শুরু করে।

খবর পেয়ে জলিল মোল্লার ভাই জব্বার মোল্লা ও পরিবারের লোকজন সেখানে যান। তারা প্রতিপক্ষের লোকজনের হাত থেকে তাকে রক্ষা করার চেষ্টা করেন।

এ সময় প্রতিপক্ষের আরজু মোল্লা ধারালো ছ্যান দিয়ে জব্বার মোল্লার ঘাড়ে কোপ মারে। এতে সে মাটিতে লুটিয়ে পড়লে অন্যরা তাকে এলোপাতাড়িভাবে মারপিট করলে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যায়।

এ ঘটনায় নিহত জব্বার মোল্লার ছেলে নাজমুল মোল্লা বাদী হয়ে কালুখালী থানায় ৭ জনের নাম উল্লেখ করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। পরবর্তীকালে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা একই বছরের ৩১ ডিসেম্বর আদালতে ৭ জনের নামে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

দীর্ঘ ৪ বছর পর এ হত্যায় আদালত আরজু মোল্লাকে মৃত্যুদণ্ড প্রদান করেন। এ ছাড়া রোজিনা ও তার স্বামী এরশাদ বিশ্বাস, খোরশেদ মোল্লা ও তার ছেলে রাশেদ মোল্লাকে ৩ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড এবং বেল্লাল মোল্লা ও শহর আলীকে ১ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন। একই সঙ্গে প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে অর্থদণ্ড প্রদান করেন।

উত্তরণবার্তা/এআর
 



বান্দরবানে নারীকে পিটিয়ে হত্যা

  ফেব্রুয়ারি ২০, ২০২০

মঙ্গলবার থেকে বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা

  ফেব্রুয়ারী ২০, ২০২০     ৩৫৫

মাছ-মাংস কি মৃত্যুঝুঁকি বাড়ায়?

  ফেব্রুয়ারী ২০, ২০২০     ৬১

এক লাখ নারী উদ্যোক্তা তৈরি করা হবে

  ফেব্রুয়ারী ২০, ২০২০     ২১

পুরনো খবর