‘পল্লীনিবাস’ই এরশাদের দাফন     বিএনপি-জামায়াতের ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় সক্ষম আওয়ামী লীগ : হানিফ     বন্যাকবলিত মানুষের জন্য ৩ কোটি ১৭ লাখ টাকা বরাদ্দ দিয়েছে সরকার     প্লানেট ৫০-৫০ অর্জনে নারীর ক্ষমতায়নের পূর্ণ বাস্তবায়ন অপরিহার্য : স্পিকার     সায়মা ওয়াজেদের নকশার নৌকা বন্যাকবলিত এলাকায়     আংশিক চন্দ্রগ্রহণ আজ মধ্যরাতে     এইচএসসি ও সমমানের ফল বুধবার     কাল চালু হচ্ছে ঢাকা-বেনাপোল ট্রেন সার্ভিস    

সাফ সেমিফাইনালে ভারত-পাকিস্তান মহারণ

  সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৮     ১৫৪     ৫:২৫ অপরাহ্ণ     ক্রীড়া
--

উত্তরণবার্তা ক্রীড়া ডেস্ক : আজ বিকাল ৪টায় প্রথম সাফ কাপের সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে নেপাল-মালদ্বীপ। সন্ধ্যা সাতটায় দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারত-পাকিস্তান।

দুটি সেমিফাইনাল থেকে নেপাল আর পাকিস্তান জিতলে নতুন চ্যাম্পিয়নই এবার পাবে সাফ। সেই সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না। নেপালের রক্ষণ যেমন গোছানো, আক্রমণভাগও তেমন যুৎসই। বাংলাদেশকে ২-০ গোলে হারিয়ে নিজেদের শক্তিটা দেখিয়েছেও নেপাল। শেষ চারের আগেই দর্শক বানিয়ে দিয়েছে স্বাগতিকদের।

প্রত্যাশা না নিয়ে ঢাকায় পা রাখা পাকিস্তানও উঠে এসেছে সেমিফাইনালে। সেমিতে ওঠা মালদ্বীপই একমাত্র দল, যারা দুই ম্যাচে কোনো গোল না করে এবং মাত্র এক পয়েন্ট নিয়ে উঠে এসেছে সেমিফাইনালে। তবে সবাইকে একপাশে রেখে বলতেই হচ্ছে, বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ভারতই শিরোপার এক নম্বর দাবিদার।
এটা ঠিক, ভারত-পাকিস্তান ক্রিকেট বা হকি ম্যাচ যতটা যুদ্ধের আবহ ফিরিয়ে আনে, ফুটবল মাঠে তেমন বারুদ পোড়ায় না। তারপরও ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের মেজাজই আলাদা। যদিও ফুটবলের ময়দানে প্রতিবেশীদের বিপক্ষে ভারতের একচ্ছত্র প্রাধান্য। দুই দেশের ২৩ সাক্ষাতে ভারতের জয় ১৪টি। ছয় ড্র আর পাকিস্তান জিতেছে তিনবার।

তবে অভিজ্ঞতা, পেশাদারি, সবকিছু মিলিয়ে ভারত সাফ ফুটবলে বরাবরই ‘বাঘ’। সাফ নিয়ে এখন আর অত ভাবে না ভারত। ভারত যা করার মাঠেই করছে। এই সাফে নিজেদের অনূর্ধ্ব-২৩ দল পাঠালেও শ্রীলঙ্কা ও মালদ্বীপকে পরিষ্কার ২-০ গোলে হারিয়ে নিজেদের শক্তি দেখিয়েছে। ভারতের মূল জাতীয় দলে আসা-যাওয়া করা চারজন ফুটবলার আছেন এখানে।

সাফ কাপের প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে জয় পেলেও দলের খেলায় সন্তুষ্ট ছিলেন না ভারত কোচ কনস্টানটাইন। মালদ্বীপের বিরুদ্ধে জয়ের পর অনেকটাই নিশ্চিন্ত তিনি। এরপর সামনে সেমিফাইনালে রয়েছে পাকিস্তানের চ্যালেঞ্জ। তবে প্রতিপক্ষের নাম পাকিস্তান বলেই সেই ম্যাচকে আলাদা করে দেখতে নারাজ কনস্টানটাইন। বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে নামার আগে পাকিস্তান নিয়ে দলের ছেলেরা বাড়তি চাপ নিচ্ছে না বলেই জানিয়েছেন। তিনি বলেন, 'আমরা এই (ভারত-পাকিস্তান) প্রতিদ্বন্দ্বিতা সম্পর্কে জানি। কিন্তু তাতে আলাদা কিছু নেই। এটা শুধু মাত্র আরেকটি ম্যাচ। আশা করি আমরা জিতে ফাইনালে উঠব।'

ফুটবল মাঠে দুই দলের শেষ সাক্ষাত হয়েছিল ২০১৩ সালের সাফ কাপে। কাঠমান্ডুর সেই ম্যাচে সমর ইশাকের আত্মঘাতি গোলে কোনও মতে পাকিস্তানকে ১-০ গোলে পরাজিত করেছিল ভারত। তবে সেই সময়ের পর ভারতীয় ফুটবল অনেকটাই এগিয়ে গিয়েছে। এবারের টুর্নামেন্টে এখনও অবধি ভারতের পারফরম্যান্সও আশাজনক।
উত্তরণবার্তা/আসো



অতিরিক্ত ওজন কমাবে ৩ খাবার

  জুলাই ১৬, ২০১৯     ৫৭১

আংশিক চন্দ্রগ্রহণ আজ মধ্যরাতে

  জুলাই ১৬, ২০১৯     ৫৫৪

কি খেতেন শতবর্ষীরা ?

  জুলাই ১১, ২০১৯     ৪৮৪

শিশু ধর্ষক গ্রেফতার

  জুলাই ১৪, ২০১৯     ২৪৬

গোবিন্দের চলচ্চিত্রে শিমলা

  জুলাই ১১, ২০১৯     ২১৪

বরকতের দাম উঠেছে ৬ লাখ

  জুলাই ১২, ২০১৯     ১৫৯

আংশিক চন্দ্রগ্রহণ বুধবার

  জুলাই ১৫, ২০১৯     ১১০

শুভ আষাঢ়ী পূর্ণিমা আজ

  জুলাই ১৬, ২০১৯     ৮৪

পুরনো খবর